Press "Enter" to skip to content

‘আমি বাংলা বিরোধী নয় কিন্তু অবশ্যই মমতা বিরোধী’- অমিত শাহের কড়া জবাব মমতাকে।

আজ কলকাতার মেয়ো রোডে আয়োজিত হয়েছিল বিজেপির সভা। সেই সভা থেকেই মমতার বিরুদ্ধে আক্রমণাত্মক রূপে ভাষণ দিলেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ। আসলে পশ্চিমবঙ্গে বিজেপির বিশাল উত্থানকে আটকাবার জন্য বিজেপিকে বাংলা ও বাঙালি বিরোধী বলে প্রচার করছে তৃণমূল। এর জন্য তৃণমূল বহু জায়গায় ব্যানারেও প্রচার চালিয়েছে। আর এর উত্তর দিতে গিয়েই মমতার উপর আক্রমণ করেন অমিত শাহ। বাংলা বিরোধী এই অভিযোগের উত্তর দিতে গিয়ে অমিত শাহ বলেন, মমতা দিদি কলকাতায় ব্যানারে লিখে রেখেছে যে বিজেপি বাংলা বিরোধী।

আমার কি করে বাংলা বিরোধী হতে পারি দিদি? আমাদের পার্টির স্থাপনা যিনি করেছিলেন তিনি তো পশ্চিমবঙ্গের মহান সুপুত্র শ্যামাপ্রসাদ মুখার্জী। তাহলে আমরা কি করে বাংলা বিরোধী হতে পারি! শাহ বলেন, আমরা বাংলা বিরোধী নয় কিন্তু অবশ্যই মমতা বিরোধী। বাংলার প্রতি প্রেম, আদর, উচ্চভাব,ভালোবাসা ভোটের জন্য নয়, আমরা রামকৃষ্ণ পরম হংস ও স্বামী বিবেকানন্দের আদর্শকে পুজো করি। অমিত শাহ বলেন, আমি প্রত্যেক জেলায় সভা করে আন্দোলন তুলবো এবং তৃণমূলকে উপড়ে ফেলবো।

মমতাকে উদেশ্য করে শাহ বলেন, ইতিহাস খুলে দেখে নিন যাদেরকে যত দাবিয়ে রাখার চেষ্টা করা হয়েছে তাদের আন্দোলন ততই প্রবল হয়েছে। অমিত শাহ বলেন, মমতা ব্যানার্জী NRC নিয়ে ভ্রান্তি সৃষ্টি করছে মানুষের মধ্যে। অমিত শাহ নিশ্চিত করেন যে কোনো শরণার্থীকে দেশ থেকে বের করা হবে না।

বের করা হবে বিদেশী অনুপ্রবেশকারীদের। শাহ বলেন, একসময় এই বিদেশী অনুপ্রবেশকারীদের দেশ থেকে বের করার জন্য সদনে হাঙ্গামা করেছিলেন মমতা ব্যানার্জী কারণ তখন এই অনুপ্রবেশকারীরা বামফ্রন্টকে ভোট দিত। কিন্তু আজ এরাই তৃণমূলের ভোট ব্যাঙ্ক হয়ে দাঁড়িয়েছে তাই এদের পক্ষ নিচ্ছে মমতা ব্যানার্জী। মমতার উদ্যেশে অমিত শাহ বলেন, আমরা ভারতীয় জনতা পার্টির কার্যকর্তা, আমাদের কাছে দেশ আগে, ভোটব্যাঙ্ক পরে। তাই আপনি যতই NRC প্রক্রিয়ার বিরোধ করুন না কেন আমরা এটা থামবো না