Press "Enter" to skip to content

চাঞ্চল্যকর রিপোর্ট CIA এর! বিশ্বের সমস্থ ইসলামিক দেশকে মাত্র ১৪ দিনেই হারিয়ে দেবে ভারতীয় সেনা।

গতবছর কিছু মুসলিম দেশ ছাড়া বাকি সমস্থ মুসলিম দেশ একত্রে িক সেনা তৈরির সিধান্ত নিয়েছিল। এই ইসলামিক উপর চর্চা এখনো চলছে। এই ইসলামিক সেনার প্রধান পদে পাকিস্থানি সেনার প্রমুখ জেনারেল রহিল শরীফকে করা হয়েছিল। এই ইসলামিক সেনার হেড কোয়াটার সৌদি আরবে করা হয়েছে। ইসলামিক সেনার নির্মাণের চর্চা উঠার পর থেকেই এটা বলা হয়েছিল যে যুদ্ধ পরিস্থিতিতে সকল ইসলামিক দেশ একত্রে লড়াই করবে। কোনো একটা ইসলামিক দেশে আক্রমন হলে তা সকল ইসলামিক দেশের উপর আক্রমণ বলে গণ্য করা হবে। এই যুদ্ধকালীন পরিস্থিতে ইসলামিক সেনা একজুট হয়ে লড়াই করবে। এই ইসলামিক সেনার চর্চা পর থেকে পাকিস্থান, ভারতকে হুমকি দিতে শুরু করেছিল। কিন্তু এখন এই ব্যাপারে CIA যা রিপোর্ট বের করেছে তা বিশ্বকে অবাক করেছে। CIA এর বক্তব্য সকল ইসলামিক দেশ একত্র হয়েও ভারতের সামনে টিকতে পারবে না।

যদি সমস্থ ইসলামিক দেশ এক হয়ে ভারতের বিরুদ্ধে যুদ্ধে করে তাহলে মাত্র ১৪ দিনেই ভারত ইসলামিক দেশকে হারিয়ে ে। বিশ্বে 56 টি মুসলিম বহুল কট্টরপন্থী ইসলামিক দেশ রয়েছে যাদের মোট জনসংখ্যা ১৬২ কোটি। আসলে ইসলামিক দেশের সংখ্যা বেশি হলেও ভারতের সামনে এই দেশগুলি এখনো তুচ্ছ। বিশ্বের কিছু মুসলিম দেশ এতটাই ছোট যে সেই দেশের থেকে ভারতের গোয়া রাজ্যে বড়ো। এছাড়াও বেশিরভাগ ইসলামিক দেশ মহামারির কারণে বেহাল হয়ে রয়েছে। পাকিস্থান ছাড়া আর কোনো মুসলিম দেশ পরমাণু শক্তিসম্পন্ন নয়।

ইসলামিক দেশগুলির মোট সৈনিক সংখ্যা ১৯.৬২ লক্ষ হবে। অন্যদিকে ভারতের কাছে ১৬.৮২ লক্ষ আর্মি রয়েছে ও ১১.৩১ লক্ষ রিজার্ভ সৈনিক রয়েছে। কোনো ইসলামিক দেশের কাছে বিমানবাহক যুদ্ধ পত নেই কিন্তু ভারতের কাছে ৫ টি যুদ্ধ পোত রয়েছে। কোনো ইসলামিক দেশের কাছে আন্টি নেই, আমেরিকা, চীন, ইসরায়েল পর ভারত বিশ্বের চতুর্থ এমন দেশ যার কাছে মিসাইলকে বায়ুমণ্ডলেই নষ্ট করে দেওয়ার শক্তি রয়েছে। কোনো ইসলামিক দেশের কাছে ৭০০০ কিমি মারক শক্তি সম্পন্ন মিসাইল নেই কিন্তু ভারতের কাছে ৩২,০০০ কিমি মারক শক্তি সম্পন্ন মিসাইল রয়েছে।

কোনো ইসলামিক দেশের কাছে সুপারসনিক মিসাইল নেই কিন্তু ভারতের কাছে ের মতো ভয়াবহ মিসাইল রয়েছে। CIA এর অনুযায়ী যদি সমস্থ ইসলামিক দেশ এক হয়ে, আতঙ্কবাদীদের সাথে এক হয়ে ভারতের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করে তাহলেও মাত্র ১৪ দিনে ভারত এই ইসলামিক দেশগুলিতে ত্রিরঙা উড়ানোর ক্ষমতা রাখবে। সম্প্রতি কিছু বছরে ভারতের কাছে অত্যাধুনিক অস্ত্র আসায় সামরিক শক্তি ব্যাপক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। তাই ইসলামিক সেনা নিয়ে ভারতবাসীর চিন্তার কোনো বিশেষ কারণ নেই।