Press "Enter" to skip to content

“মোদী ভারতে টিকে থাকলে পাকিস্থান শেষ হয়ে যাবে, টুকরো টুকরো হয়ে যাবে পাকিস্থান”: জেইদ হামিদ, পাকিস্থানের সুরক্ষা বিশেষজ্ঞ।

পাকিস্থানের ভৌগোলিক ক্ষেত্রের জন্য বড় বিপদ। এটা আমারা বলছি না, এটা বলছে পাকিস্থানের এক রক্ষা বিশেষজ্ঞ। পাকিস্থানের এই সুরক্ষা বিশেষজ্ঞ এর নাম জেইদ হামিদ। এই সুরক্ষা বিশেষজ্ঞ হিন্দু বিরোধী ও ভারত বিরোধী মন্তব্যের জন্য পাকিস্থানে কুখ্যাত। জেইদ হামিদ প্রায় সময় পাকিস্থানের মিডিয়া, টিভি চ্যানেলের সামনে বসে অথবা সোশ্যাল মিডিয়ায়র মাধ্যমে ভারত বিরোধী এজেন্ডা চালায়।

জেইদ হামিদ এখন দাবি করেছে যে, যদি নরেন্দ্র মোদী ভারতে রয়ে যায় তাহলে পাকিস্থানের অস্থিত সংকটে পড়বে। নরেন্দ্র মোদী থাকলে পাকিস্থান এত থাকবে না। কিছু বছরের মধ্যে পাকিস্থান কয়েক টুকরোতে পরিণত হবে বলে দাবি করা হয়েছে এই রক্ষা বিশেষজ্ঞদ্বারা। হামিদ বলেছে- নরেন্দ্র মোদী এমন বিদেশ নীতি তৈরি করেছে যে পুরো বিশ্ব ভারতের দিকে কথা বলছে। পাকিস্থানের হয়ে কোনো দেশ নেই। এমনকি যারা আগে পাকিস্থানের হয়ে কথা বলতো তারাও ভারতের হয়ে কথা বলছে।

সৌদি আরব, ইরানের মতো ইসলামিক দেশগুলিও নরেন্দ্র মোদীর হয়ে কথা বলতে শুরু করে দিয়েছে বলে দাবি হামিদের। ভারতের গোয়েন্দা সংগঠনগুলি ইরান দেশকে ব্যাবহার করছে বলেও দাবি করে হামিদ। ইরান, বাংলাদেশ, আফগানিস্তান, সৌদি আরবের মতো ইসলামিক দেশগুলি এখন ভারতের দিকে ঝুঁকে পড়েছে বলে দাবি করেছে হামিদ। মোদী পাকিস্থানকে কয়েক টুকরো করে দেওয়ার কাজে নেমে পড়েছে, আর যদি মোদী ভারতে থেকে যায় তাহলে সেটা সম্ভবও হয়ে যাবে।

জেইড হামিদের দাবি, ১৯৭১ সালে যখন পাকিস্থানকে ভেঙে বাংলাদেশ তৈরি করা হয়েছিল তখনও ভারত দেড় বছর আগে থেকে পরিকল্পনা করতে শুরু করেছিল। আর এখন মোদী সেই কাজ আবার শুরু করেছে। অবশ্য বর্তমানের পরিস্থিতির দিকে লক্ষ করলে এটা পরিষ্কার যে জেইড হামিদ ঠিক কথা বলছে। মোদী পাকিস্থানকে চারিদিক থেকে ঘিরে ফেলেছে এবং পাকিস্থানকে চার টুকরো করার জন্য পরিকল্পনা করছে।

11 Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.