Press "Enter" to skip to content

দিল্লীর পর এবার লখিমপুরের শিবমন্দিরে আক্রমন চালালো কট্টরপন্থীরা! নিশ্চুপ মিডিয়া ও রাজনীতিবিদ।

কিছুমাস পরে শ্রাবণ মাস শুরু হবে, এই সময় হিন্দু সমাজ ভগবান শিবের পূঁজা করে। আর শ্রাবণ মাস প্রবেশ করার আগেই মন্দিরে মন্দিরে জেহাদীর হামলা শুরু হয়ে গেছে। দিল্লী, মুজাফরপুর ও আগ্রার পর এবার লখিমপুর থেকে মন্দিরে হামলার সামনে আসছে। লখিমপুরে হিন্দু মন্দিরের উপর হামলা চালানো হয়েছে। মন্দিরের এক অংশকে ভেঙে দেওয়া হয়েছে। শুধু এই নয় মন্দিরের ভেতরে থাকা শিবলিঙ্গকে বাইরে ছুঁড়ে ফেলা হয়েছে। প্রায় ১০০ জনের জেহাদী ভিড় এসে মন্দিরে আক্রমন করা হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে।

উত্তরপ্রদেশের লখিমপুরে এক শিবমন্দিরের উপর জেহাদীরা আক্রমন করে তার এক অংশ ভেঙে দিয়েছে এবং শিবলিঙ্গকে মন্দিরের বাইরে ছুঁড়ে ফেলা হয়েছে। ঘটনার খবর পুলিশ পর্যন্ত পৌঁছানো হয়েছে। ঘটনায় ওয়াসিম, নাসির, সারাফত, রশিদ সহ বেশ কিছু কট্টরপন্থীর নাম সামনে এসেছে। ঘটনাকে কেন্দ্র করে স্থানীয় হিন্দুদের মধ্যে চরম আক্রোশ রয়েছে। দালাল ঘটনাটিকে ধামাচাপা দেওয়ার প্রয়াস শুরু করে দিয়েছে।

ঘটনার উপর পুলিশ জানিয়েছে যে অভিযুক্তদের সন্ধান চলছে। জানিয়ে দি, মাত্র কয়েকদিন আগেই দিল্লীতে জেহাদীদের ভিড় আক্রমন চালিয়ে মন্দির ভাঙচুর চালিয়ে ছিল। সেই সময়ে কোনো পার্টির নেতা ঘটনা নিয়ে মুখ খোলেনি আর লখিমপুরের ঘটনা নিয়েও কোনো পার্টির নেতা মুখ খোলেনি। দিল্লী পুলিশ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী নিয়ন্ত্রণে থাকা সত্ত্বেও হিন্দুদের মন্দিরে এমন আক্রমন লজ্জাজনক বলে অনেকে মন্তব্য করেছিল। আর তার রেশ কাটতে না কাটতেই এখন উত্তরপ্রদেশের লখিমপুরে শিব মন্দির ভাঙার ঘটনা সামনে আসছে।