Press "Enter" to skip to content

কর্ণাটকে সরকার বাঁচাতে সমস্ত বিধায়কদের ভিন রাজ্যে নিয়ে যাচ্ছে কংগ্রেস, রাখা হবে বিলাসবহুল হোটেলে

কর্ণাটকে আবারও রাজনৈতিক অস্থিরতা শুরু হয়েছে। শনিবার কর্ণাটকে কংগ্রেসের ৮ বিধায়ক এবং জনতা দল সেখুলারের ৩ বিধায়ক ইস্তফা দিয়েছেন। আর ১১ বিধায়কের ইস্তফার পরেই কর্ণাটকে জোট সরকারের উপড়ে সিঁদুরে মেঘ দেখা দিয়েছে। যদিও বিধানসভার স্পীকার রমেশ কুমার এখনো পর্যন্ত কোন বিধায়কের ইস্তফাই স্বীকার করেন নি।

আরেকদিকে এটা শোনা যাচ্ছে যে, কর্ণাটকের কংগ্রেসের পর্যবেক্ষক কে.সি বেনুগোপাল বেঙ্গালুরু পৌঁছে বিধায়কদের সাথে দেখা করেন। সুত্র অনুযায়ী, কংগ্রেস শনিবার আর রবিবার রাতে স্পেশ্যাল ফ্লাইটে বিধায়কদের অন্য রাজ্যে নিয়ে যাবে। ব্যাঙ্গালুরু বিমান বন্দরে পৌঁছানর পর কেসি বেনুগোপাল বলেন, আমি বিধায়কদের সাথে কথা বলব। এমনকি এটাও খবর আসছে যে, যেই ১১ বিধায়ক ইস্তফা দিয়েছেন, তাঁরা সবাই গোয়ায় চলে গেছেন।

কর্ণাটকে রাজনৈতিক অস্থিরতা সৃষ্টি হওয়ার পর কর্ণাটক বিজেপির সভাপতি ইয়েদুরাপ্পা বলেন, ‘ আমার আর আমার দলের অন্য দলে কি হচ্ছে সেটা নিয়ে কোন মাথা ব্যাথা নেই। আমি মিডিয়ার মাধ্যমে খবর পেয়েছি যে, কংগ্রেস আর জেডিএস এর বিধায়ক কর্ণাটক বিধানসভা থেকে ইস্তফা দিয়েছে। আমি এটাই জানাতে চাই যে, এই ইস্যু নিয়ে বিজেপির কোন কিছু বলার নেই।”

উনি বলেন, ‘ আমি কর্ণাটকের নাটক খুব কাছ থেকে দেখছি। আমি এটাই বলতে চাই যে, মানুষ নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত না। নির্বাচন সরকারি কোষ ধ্বংস করে। যদি এরকম কিছু পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়, তাহলে আমরা সংবিধান মেনে নিশ্চিত সরকার গড়ব।”

you're currently offline