Press "Enter" to skip to content

বড় খবর- নরেন্দ্র মোদীর মাস্টারস্ট্রোক! চীনের মুখ থেকে ৩০০ মিলিয়ন ডলার ছিনিয়ে নিলো ভারত।

ের প্রধানমন্ত্রী আরো একবার ের রাষ্ট্রপতি জিনপিংকে হারিয়ে দিলেন। এবার ভারত সরকার চীনকে শ্রীলঙ্কার মাটিতে আছড়ে দিয়ে বড়ো উপলদ্ধি অর্জন করলো। কিছু সপ্তাহ আগেই মালদ্বীপে জিনপিংকে হারিয়ে ছিল। যেখানে রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে সরাসরি চীন সমর্থিত প্রার্থী ও ভারত সমর্থিত প্রার্থীর মধ্যে ছিল। মালদ্বীপের নির্বাচনে চীনের অনেক কূটনীতির পরেও ভারত সমর্থিত প্রার্থীর জয় হয়েছিল কারণ মোদী আগে থেকেই মালদ্বীপে RAW নিযুক্ত করে বড়ো প্ল্যান করে রেখেছিল।

আরো পড়ুন – বেরিয়ে এলো আসল সত্য! ঠিক এইভাবেই বিশ্বাসঘাতকতা করা হয়েছিল নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর সাথে।

এবার মোদী সরকার আরো একটা বড়ো জয় নিয়ে এসেছে। এবার নরেন্দ্র মোদী চীনের থেকে ৩০০ মিলিয়ন ডলারের কন্ট্রাক্ট ছিনিয়ে নিলো। আসলে চীন অনেকদিন থেকে শ্রীলঙ্কাকে নিজের দলে করার প্রয়াস করছিল, আসল উদ্দেশ্য ছিল ভারতকে চারিদিক থেকে ঘিরে ফেলা। কংগ্রেস সরকার বার বার চীনের সেই জালে ফেঁসে যাচ্ছিল কিন্তু মোদী ক্ষমতায় আসার পর থেকে ভারতের কূটনীতির পরিবর্তন আসে।

 

শ্রীলঙ্কার জাফানায় LTTE এর সাথে সংঘর্ষের পর সবকিছু ধ্বংস হয়ে গেছিল। শ্রীলঙ্কার জাফনায় নতুন করে ৪০,০০০ বাড়ি তৈরি করার ৩০০ মিলিয়ন ডলার টাকার কন্টাক্ট চীনকে দেওয়া হয়েছিল। জানিয়ে দি জাফনা একটা হিন্দুবহুল এলাকা যেখানে ৪০ হাজার নতুন বাড়ি তৈরির জন্য ৩০০ মিলিয়ন আমেরিকান ডলারের কন্ট্রাক্ট দিয়েছিল। এরপর। নরেন্দ্র মোদী ভারত থেকে কূটনীতি শুরু করে দেন। মোদীর প্ল্যান অনুযায়ী জাফনার স্থানীয় লোকেরা চীনের বিরোধ শুরু করে দেয়।

আরো পড়ুন – ” ধন্যবাদ হিন্দুত্ববাদকে, যার জন্য ভারতে আতঙ্কবাদ প্রবেশ করতে পারেনি” – চীন মিডিয়া।

এলাকা প্রথম থেকেই হিন্দু বহুল ছিল তাই শ্রীলঙ্কা কোনো মতেই চাইনি যে আবার LTTE এর সংঘর্ষ শুরু হয়ে যাক। তাই শ্রীলঙ্কা চীনকে দেওয়া চুক্তি ফিরিয়ে নেয়। শ্রীলঙ্কার সেই কন্ট্রাক্ট ছিনিয়ে নিয়ে ভারতকে দিয়ে দেয়। এক কথায় মোদী পুরো কন্ট্রাক্ট চীনের মুখ থেকে ছিনিয়ে নিয়ে চলে এসেছে। এটা শুধু মাত্র ৩০০ মিলিয়ন ডলারের বিষয় নয়, এটা একটা কূটনৈতিক জয় যার মাধ্যমে ভারত একটা বড়ো সাফল্য পেলো। এবার চীন কোনভাবেই ভারতকে ঘিরে ফেলতে পারবে না এবং জাফানায় কাছে থাকা ভারতের তামিলনাড়ু রাজ্যের উপর নজরদারি করতে পারবে না।