Press "Enter" to skip to content

নদীয়ায় হিন্দু পুরোহিত খুন,জলাশয় থেকে মিলল দেহ! বাংলাদেশ হওয়ার দিকে অগ্রসর হচ্ছে পশ্চিমবঙ্গ!

বাংলাদেশে হিন্দু পুরোহিত খুন খুবই নিত্য ঘটনা, আর এখন পশ্চিমবঙ্গেও পুরোহিত খুনের ঘটনা সামনে আসতে শুরু হয়েছে। ইসলামিক আগ্রাসন থেকে বাঙালি হিন্দুদের রক্ষার জন্য পশ্চিমবঙ্গের গঠন করা হয়েছিল। কিন্তু এখন পশ্চিমবঙ্গেও হিন্দুরা কোণঠাসা হতে শুরু হয়েছে বলে দাবি উঠেছে। পশ্চিমবঙ্গ থেকে একের পর এক চাঞ্চল্যকর ঘটনা সামনে আসছে। বিজয়া দশমীর দিন মুর্শিদাবাদের জিয়াগঞ্জে এক RSS কর্মী ও তার পরিবারের তিনজনকে হত্যা করা হয়। যা নিয়ে বুদ্ধিজীবী ও নেতাগণ একেবারে নিশ্চুপ ছিল। ঘটনা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ার ব্যাপক তোলপাড় হওয়ার পর নেতারা মুখ খুলতে বাধ্য হয়।

আর এখন নদিয়ার শান্তিপুর থেকে এক খবর সামনে আসছে যেখানে এক পুরোহিত খুন হয়েছেন। সুপ্রিয় ব্যানার্জী নামক হিন্দু পুরোহিত নদিয়ার শান্তিপুরে খুন হয়েছেন। এই ঘটনার পেছনে পুলিশের গাফিলতি রয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে। আসলে নবমীর রাতে পূজো করার পর থেকে নিখোঁজ ছিলেন সুপ্রিয় ব্যানার্জী। এরপর পুলিশের কাছে নিখোঁজ ডাইরি করা হলে তারা কোনো পদক্ষেপ নেয়নি। এক জলাশয় থেকে সুপ্রিয় বাবুর দেহ উদ্ধার হয় বলে জানা গেছে। বৃহস্পতিবার দিন পুলিশকে আটক করে বিক্ষোপ দেখায় স্থানীয় লোকজন।

সুপ্রিয় ব্যানার্জী একজন বিজেপি কর্মী ছিলেন বলেও খবর পাওয়া গেছে। বঙ্গবিজেপি তাদের অফিসিয়াল টুইটারে জানিয়েছে যে, বিগত ৪ দিনে তদের ৮ জন কর্মী খুন হয়েছেন। পশ্চিমবঙ্গের আইন-কানুন এখন একটা হাসি মজায় পরিণত হয়েছে বলে দাবি বিজেপির। সোমবার রাতে কিছুজনের সাথে সুপ্রিয় ব্যানার্জীর দ্বন্দ হয়েছিল বলে স্থানীয়রা দাবি করেছেন। ৪৫ বছরের সুপ্রিয় বাবুর খুন নিয়ে এলাকায় পুলিশ প্রশাসনের উপর মানুষের অসন্তোষ তৈরি হয়েছে।

বিজেপি ঘটনার প্রতিবাদ জানানোর পর অনেকে পাল্টা বিজেপির উপর রাজনীতি করার অভিযোগ তুলেছেন। অনেকের দাবি বিজেপি কোনো হত্যাকে গম্ভীরভাবে নিচ্ছে না। বিজেপি গম্ভীর হলে রাজ্যে রাষ্ট্রপতি শাসন জারির দাবি তুলতো কিন্তু বিজেপি শুধুমাত্র মানুষের সহানুভূতি পাওয়ার চেষ্টা করছে বলে দাবি উঠেছে। মুর্শিদাবাদে RSS কর্মীর সপরিবারে খুনের বিষয়েও বিজেপি অনেক পরে পতিক্রয়া জানিয়েছে। সেক্ষেত্রেও বিজেপি উপর প্রশ্নঃ তুলেছেন অনেকে।

you're currently offline