in , ,

পরিষ্কার হয়ে গেল ২০১৯ এর ছবি! ৫৪৩ লোকসভা আসনের উপর নতুন সার্ভেতে জয়ী হলো এই পার্টি।

আগামী বছর ভারতে লোকসভা নির্বাচন। সেই নির্বাচনকে মাথায় রেখে ফলাফল নিয়ে দেশের অনেক বড়ো বড়ো মিডিয়া তাদের সার্ভে করেছে। সেই সকল সার্ভের ফলাফল নিয়ে দেশের নানাস্তরে চলেছে আলোচনা। লোকসভা নির্বাচন হতে আর বেশি সময় বাকি নেই, তাই দেশের সমস্ত রাজনৈতিক দল তাদের প্রস্তুতিতে চরম ভাবে নজর দিচ্ছেন। আপনাদের জানিয়ে রাখি যে, এই ভোটের আগে দেশের শাসক দলের উপর একটা বাড়তি দায়িত্ব থাকে সেটা হল দেশের সমস্থ বিরোধী দলের পাশাপাশি জনগনের সামনেও তারা একটা রিপোর্ট কার্ড রাখেন সেখানে দেশের ভালো ভালো কাজ গুলির একটা লিষ্ট থাকে, তবে এখনকার জনগণ আগের থেকে অনেক বেশি সচেতন তারা বিজপির আমলে হওয়া দেশের সমস্ত ভালো কাজ গুলির খবর আগে থেকেই রেখে দেন। তবে কয়েক দিন আগে এমন একটা সার্ভে করা হয়েছে যেটার কিছু তথ্য আপনাকেও অবাক করে দেবে।

তবে এই সময় অনেক রাজনৈতিক দল আছে যারা এই ভোটদান কে নিজেদের মত করে চালাতে চাই কিন্তু দেশের সাধারণ মানুষ কি চাই সেটার দিকে কেউ খেয়াল রাখেন না। ভারতের মানুষ আগের রাজনৈতিক দল গুলির উপর অনেক ভরসা করে তাদের কে দেশের শাসন ক্ষমতায় এনেছিল কিন্তু সেই সমস্ত দল ভারতের মানুষকে শুধুমাত্র মিথ্যা প্রতিশ্রুতিই দিয়েছিল কাজের কাজ কিছুই করে নি। সেই জন্যই দেশের মানুষ ২০১৪ সালের লোকসভা ভোটে বিজেপির উপর ভরসা করে দেশের ক্ষমতায় এনেছেন মোদী সরকার কে।

কিন্তু এবার দেশের সাধারণ জনগণ কাকে চাইছেন কার উপর তাদের ভরসা সেটাই দেখার। তবে বিজেপির ভক্তদের জন্য সুখের খবর হল যে, এখন অবদি যতগুলি সার্ভে হয়েছে সেই প্রত্যেকটিতেই দেশের ক্ষমতায় সাধারণ মানুষ আবার বিজেপিকেই দেখতে চাইছেন।
আপনাদের জানিয়ে রাখি যে, দেশে আজ অবদি যত গুলি ভোট হয়েছে সেই সব ভোটের আগে সার্ভে করা হয়েছে এবং ৯৯.৯% সার্ভের ফল একদম সঠিক হয়েছে। এবার আপনারা জেনে নিন এক বিশেষ খবর, কিছু দিন আগে এবিপি নিউজ একটি সার্ভে করে সেই সার্ভেতে পরিষ্কার ভাবে সবকিছু স্থির হয়ে যায় যে, এবার দেশের ভবিষ্যৎ কোন দিকে যাবে।

৫৪৩ টি আসনের উপর সার্ভে করা হয়, এর সার্ভে অনুয়ায়ী দেখা যাচ্ছে যে এবার ভোটে বিজেপি এবং কংগ্রেসের মধ্যে মূল লড়াই হবে। সেই লড়াই এ কংগ্রেস কে বিজেপি অনেকটাই পিছনে ফেলে দিয়ে ৫৪৩ টি আসনের মধ্যে ২৭৬ টি আসন পাবে এবং কংগ্রেস পাবে মাত্র ১১২ টি আসন। তার মানে সরকার গড়ার জন্য যত গুলি আসন বিজেপির প্রয়োজন সেটা তারা পেয়ে যাচ্ছে। এই সার্ভে থেকে এটা পরিষ্কার যে, এই লোকসভা নির্বাচনে আবার দেশের ক্ষমতায় ভারতীয় জনতা পার্টিকেই সাধারণ মানুষ বেঁছে নিচ্ছেন।
#অগ্নিপুত্র

ব্রেকিং খবর: পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হলো রাহুল গান্ধীকে! দিল্লিতে CBI অফিসের সামনে উৎপাত করায় পুলিশ হেফাজতে রাহুল গান্ধী।

“নরেন্দ্র মোদী একটা নিমক হারাম’ – জিগনেশ মেবানি, রাহুল গান্ধীর প্রিয় বন্ধু।