Press "Enter" to skip to content

প্ৰধানমন্ত্রী মোদী বাঁচালেন ক্যান্সার রোগীর প্রাণ! চিঠি পাওয়া মাত্র চিকিৎসার জন্য নিজেই দিলেন ৩ লক্ষ টাকা।

হিমাচল প্রদেশের এর মুখের রয়েছে। ক্যানসারের জন্য ৩৮ বছরের অবতার সিং চাকরি হারিয়েছেন। লাগাতার তামাক জাতীয় দ্রব খাওয়ার জন্য এই ক্যানসার সৃষ্টি হয়েছে। চিকিৎসার জন্য ডক্টর উনাকে ৩ লক্ষ টাকা সংগ্রহ করার কথা বলেছিলেন। তিন লক্ষ টাকার বন্দোবস্ত শুনে অবতার সিং ঘাবড়ে যায় এবং সে ধরে ফেলে যে তার জীবন শেষ। এরপর হিমাচল প্রদেশের কাংড়ার এক বিজেপি নেতা এই ইস্যুতে স্থানীয় সাংসদ সান্তা কুমারের সাথে কথা বলেন।

সান্তা কুমার প্ৰধানমন্ত্রী মোদীকে চিঠি লিখে পুরো মামলার বিবরণ দেন। সান্তা কুমার চিঠিতে আর্থিক সাহায্যের জন্যেও লিখেন। প্ৰধানমন্ত্রী সান্তা কুমারের আর্থিক সাহায্য চাওয়াকে স্বীকার করে তিন লক্ষ টাকা প্রদানের মঞ্জুরি করেন। প্ৰধানমন্ত্রী হিমাচল প্রদেশের কাংড়ার বাসিন্দা আবতার কুমারের ডাকে তৎক্ষণাৎ যেভাবে সাড়া দেন সেটা তার পরিবারের জন্য খুব বড় লাভদায়ক প্রমাণিত হয়। প্ৰধানমন্ত্রী মোদীর এই সাহায্যের পর আবতার কুমার এর পরিবার স্বস্তির শ্বাস নিচ্ছে।

নূরপুর বিশ্ব পঞ্চায়েতের বিজেপির মন্ডলের সাথে দেখা করে আবতার সিং তার সমস্যা জানান। সমস্যা জানার পর বিজেপি মন্ডল সাংসদ সান্তা কুমারের সাথে দেখা করেন। এরপর সান্তা কুমার আর্থিক সাহায্য চেয়ে প্ৰধানমন্ত্রীকে চিঠি লেখেন। অন্যদিকে প্ৰধানমন্ত্রী মোদী অবতার কুমারের প্রয়োজনীয়তাকে বুঝে তার জন্য আর্থিক সাহায্যের মঞ্জুরি দেন।

প্রধানমন্ত্রী কার্যালয় থেকে অবতারকে ৩ লক্ষ টাকার স্বীকৃতি মঞ্জুরি হওয়ার চিঠি আসা মাত্র আবতারের পরিবার আনন্দ প্রকাশ করে। আবতারের পরিজনরা জানিয়েছে যে চিকিৎসা শুরু হয়ে গিয়েছে। মোদী ভগবান হয়ে তাদের পতিবারের পাশে দাঁড়িয়েছে বলে মন্তব্য করেন আবতারের স্ত্রী। প্ৰধানমন্ত্রী মোদীর এই সাহায্যের জন্য ধন্যবাদ জানান। জানিয়ে দি, আবতারের মতো আরো অনেক চিঠি প্রধানমন্ত্রী মোদীর কাছে আসে যার উপর লক্ষ করেই প্রধানমন্ত্রী মোদী আয়ুষ্মান ভারত যোজনা লঞ্চ করেছেন। আয়ুষ্মান যোজনার মাধ্যমে গরিব মানুষজন চিকিৎসা খাতে ৫ লক্ষ টাকা পাবে। এই যোজনার কাজ খুব দ্রুতগতিতে চলছে, অনেক রাজ্যে পুরোপুরিভাবে লাগুও হয়ে গিয়েছে।

9 Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.