Press "Enter" to skip to content

২০৩০ এর মধ্যে বিশ্বের তাবড় তাবড় দেশকে পিছনে ফেলে দ্বিতীয় বৃহৎ অর্থব্যাবস্থার দেশ হয়ে যাবে ভারত

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী আজ উত্তরপ্রদেশের সফরে আছেন। সোমবার সকালে গ্রেটার নয়ডায় আয়োজিত এক্সপো মার্টে ১৩ তম আন্তর্জাতিক তেল গ্যাস সন্মেলন আর পেট্রোটেক ২০১৯ প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন। ওই অনুষ্ঠানে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ আর রাজ্যপাল রামনাইক ও উপস্থিত ছিলেন।

ওই অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এই বছরে দেশে ১০০ শতাংশ বিশুদ্ধিকরণ আমাদের প্রধান লক্ষ্য। উনি বলেন, ভারত গোটা বিশ্বে সবথেকে দ্রুত গতিতে উঠে আসা অর্থব্যাবস্থার দেশ। বিশ্বের বড়বড় এজেন্সি গল যেমন আন্তর্জাতিক মুদ্রা ভান্ডার (আইএমএফ) আর বিশ্ব ব্যাংক ও আগামী দিনে ভারতের বড় উন্নতির কথা বলেছে।

উনি বলেন, সম্প্রতি বশ্বে ষষ্ঠ অর্থব্যাবস্থার দেশ হয়ে উঠে এসেছে ভারত। সম্প্রতি জারি করা একটি রিপোর্ট অনুযায়ী ২০৩০ এর মধ্যে ভারত বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহৎ অর্থব্যাবস্থার দেশ হয়ে যাবে। আমরা বিশ্বের তৃতীয় বৃহৎ জ্বালানি শক্তি ব্যবহারের দেশ হয়ে উঠে এসেছি। জ্বালানি শক্তির চাহিদা প্রতি বছর ৫ শতাংশ হারে বৃদ্ধি পাচ্ছে।

অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেন, আমরা দেশের মানুষদের স্বচ্ছ জ্বালানি উপলব্ধ করাতে চাই। সবাই জ্বালানি পাচ্ছে দেখেই বোঝা যাচ্ছে যে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। গোটা বিশ্বের সব দেশ জলবায়ু পরিবর্তনের সাথে লড়াই করার জন্য একজোট হচ্ছে। আমরা সেই সময়ের মধ্যে প্রবেশ করছি, যেখানে প্রচুর পরিমাণে শক্তি পাওয়া যায়। তিনি বলেন, মানুষের স্বচ্ছ জ্বালানিকে আপন করে নেওয়া উচিৎ।

গ্রেটার নয়ডার এই অনুষ্ঠানের পর প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বৃন্দাবনে অক্ষয় পাত্র এর একটি অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার জন্য রওনা দেন। ওই অনুষ্ঠানে গরীব বাচ্চাদের নিজের হাতে খাওয়ার পরিবেশন করবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ওই অনুষ্ঠানে উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ, সাংসদ হেমা মালিনি, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাবেডকর এবং বাহুবলি সিনেমার টিম উপস্থিত থাকবে।

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.