Press "Enter" to skip to content

“ভারতের ২০১৯ এর নির্বাচনে নরেন্দ্র মোদী জিতুন”: পুতিন, রুশ রাষ্ট্রপতি।

সামনে লোকসভা নির্বাচন, তার পস্তুতি জোর কদমে শুরু করে দিয়েছে রাজনৈতিক দলগুলি। তবে শুধু ভারতের রাজনৈতিক দল নয়, কিছু কিছু দেশ ভারতের নির্বাচন নিয়ে যথেষ্ট সক্রিয় হয়ে রয়েছে। আসলে কোন দেশে কোন রাজনৈতিক দল জিতবে সেই হিসেবে অন্যান তাদের পরিকল্পনা তৈরি করে রাখে। উদাহরণসরূপ, ভারতে বিজেপি জিতলে পাকিস্থানেই উপর চাপ সৃষ্টি হবে অন্যদিকে ভারতে কংগ্রেস জিতলে পাকিস্থান স্বস্তিতে থাকেব। একইভাবে অন্যান দেশগুলি তাদের আন্তর্জাতিক ব্যাবসা বাণিজ্য , বন্ধুত্ব ইত্যাদির উপর লক্ষ রেখে পরিকল্পনা তৈরি রাখে। এমনকি কিছু ক্ষেত্রে অনেক দেশ অন্য দেশের কোন রাজনৈতিক দলকে সমর্থন করবে তাও স্পষ্ট জানিয়ে দেয়। অবশ্য সেটা ইঙ্গিতের মাধ্যম বুঝিয়ে দেয়, সরাসরি কোনো ঘোষণা করে না। সামনে ভারতের লোকসভা নির্বাচন তার আগে বিশ্বের অন্যান্য দেশ নির্বাচন নিয়ে ইঙ্গিত দিতে শুরু করে দিয়েছে।

তবে সম্প্রতি ভারতের বন্ধু বিদেশ হিসেবে পরিচিত রুশ লোকসভা নির্বাচন নিয়ে যা ইঙ্গিত দিয়েছে তা রাজনৈতিক মহলে উঠালপাথাল ধরিয়ে দিয়েছে। আসলে রুশের রাষ্ট্রপতি লাদিমির পুতিন সরাসরি নরেন্দ্র মোদীর ভারতের প্রধানমন্ত্রী পদে বসানোর সমর্থন করে দিয়েছেন। গতকাল রুশের রাষ্ট্রপতি পুতিন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সাথে কথা ফোনে কথা বলেন। পুতিন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে সেপ্টেম্বর মাসে রুশের এক শহরে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন। রুশের এক শহরে ইকোনমি ফোরামের আর্থিক কার্যক্রমে প্রধানমন্ত্রী মোদীকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন।

২০১৯ সালে প্রধানমন্ত্রী পদে নরেন্দ্র মোদী বসুন সেই ইচ্ছাও প্রকাশ করেছেন পুতিন। এই এই নিয়ে দুটি পারমাণবিক শক্তি সম্পন্ন দেশ ভারতের নির্বাচন নিয়ে স্পষ্ট মত প্রকাশ করেছে। প্রথমে পাকিস্থান এবং এখন রুশ দেশ ভারতের নির্বাচন নিয়ে মন্তব্য করে দিয়েছে। পাকিস্থানের সরকার, বিরোধী, আতঙ্কবাদী সংগঠন, ধার্মিক উন্মাদী সকলেই এক সুরে কংগ্রেস পার্টির সমর্থন জানিয়েছে। অন্যদিকে ভারতের পরম মিত্র রুশ ভারতের সরকার গঠনের জন্য মোদী সরকারকে সমর্থন জানিয়েছে।

অবশ্য ভারতে কোন পার্টির সরকার গঠন হবে তা সম্পূর্ণভাবে ভারতের জনগণের হাতে। যদি দেশের জনগণ পাকিস্থান সরকার ও আতঙ্কবাদীদের ইচ্ছা পূর্ন করতে চাই তাহলে কংগ্রেসকে জিতিয়ে সরকার গঠন করতে পারে। অন্যদিকে যদি দেশের জনতা রুশের ইচ্ছাকে প্রকাশ করে তাহলে মোদীর সরকার গঠন হবে।

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.