Press "Enter" to skip to content

হিন্দু মহিলার বাড়িতে ঢুকে মহিলা ও তার মেয়েকে ধর্ষণ করার চেষ্টা করলো ৩ কট্টরপন্থী। ভারতে কি শুরু রেপ জিহাদ?

ভারত (India) দেশে রেপ জিহাদ এখন নিত্য ঘটনা হয়ে উঠেছে, কিন্তু দেশের মেনস্ট্রিম মিডিয়া ও বুদ্ধিজীবী বর্গ সম্পূর্ণ নিশ্চুপ হয়ে বসে আছে। হিন্দুদের বদনাম করতে যারা মাঝে মধ্যেই মোমবাতি হাতে নিয়ে বেরিয়ে পড়ে তারা রেপ জিহাদের মামলায় একেবারে চুপ। দেশে যে হারে ধর্ষণ চলছে তা নিয়ে গম্ভীর আলোচণার প্রয়োজন কিন্তু দেশের সরকার, বিরোধী পক্ষ নিজেদের রাজনীতি করতে ব্যস্ত। অন্যদিকে ভারতের দালাল হিন্দু বিরোধী বামপন্থী মিডিয়া ঘটনাগুলিকে ধামাচাপা দিতে লেগে পড়েছে।

এখন একটা ঘটনা বেগুসরাই থেকে সামনে আসছে, যেখানে উন্মাদী কট্টরপন্থীদের সংখ্যা খুব দ্রুতগতিতে বৃদ্ধি পেয়েছে। খবর অনুযায়ী, বেগুসরাইয়ের নূরপুর এলাকায় এক হিন্দু মহিলা ও তার মেয়ে বাড়িতে একলা ছিল। উন্মাদী কট্টরপন্থীরা সেই খবর পেয়ে তাদের বাড়ির দরজা খোলানোর জন্য ঠকঠক করে। এরপর হিন্দু মহিলা দরজা খুললেই উন্মাদীরা ধর্ষণ করার জন্য মহিলার উপর ঝাঁপিয়ে পড়ে। উন্মাদীদের নজর মহিলার মেয়ের উপর পড়লে তার উপরেও ঝাঁপিয়ে পড়ে।

হিন্দু মহিলা ও তার মেয়েকে ধর্ষণ করার জন্য ভরপুর প্রয়াস করে ৩ জন কট্টরপন্থী উন্মাদী। কিন্তু হিন্দু মহিলা সাহস দেখিয়ে চিৎকার করতে শুরু করে যার দরুন উন্মাদী জিহাদিরা মহিলা ও মেয়ের উপর পুরোপুরি কাবু করতে ব্যর্থ হয়। চিৎকারে লোকজন জড়ো হয়ে যাবে এই ভয়ে তিন উন্মাদী পলায়ন করে। ঘটনাটিকে মহিলা কেঁদে কেঁদে নিজেই ব্যাক্ত করেছে। মহিলার কি বলছেন সেটা দেখার জন্য পাঠকদের কাছে অনুরোধ রইলো। ঘটনাটিকে দেশের সমস্ত মিডিয়া লুকিয়েছে, একমাত্র সুদর্শন নিউজ ঘটনাটির রিপোটিং করেছে। সুদর্শন নিউজ এর সাংবাদিক গৌরব মিশ্র বলেন, ওই এলাকায় উন্মাদীদের সংখ্যা বেড়ে গেছে। কট্টরপন্থীদের সংখ্যা বাড়ার সাথে সাথে এলাকায় এই ধরণের উৎপাত শুরু হয়েছে।