Press "Enter" to skip to content

ভারতের মেয়েকে বিয়ে করে বংশ বিস্তার করছিল আলম হুসেন নামের এক রোহিঙ্গা! গ্রেফতার করলো অসম রাইফেলস।

ভারত এখন পুরো বিশ্বের অনুপ্রবেশকারীদের জন্য পছন্দের স্থানে পরিণত হয়েছে। প্রায় প্রত্যেকদিন নান প্রান্ত থেকে অবৈধ অনুপ্রবেশকারীরা ভারতে প্রবেশ করে জনসংখ্যা বৃদ্ধি করেই চলেছে। বিশেষ করে রোহিঙ্গা ও বাংলাদেশী মুসলিমরা ভারতে প্রচুর সংখ্যায় ঢুকে জনসংখ্যা বিস্তারে লেগে পড়েছে। এখন ভারতের প্রায় প্রত্যেক রাজ্যে অবৈধ অনুপ্রবেশকারী ঢুকে পড়েছে। অসম থেমে অবৈধ অনুপ্রবেশকারী সংক্রান্ত একটা খবর সামনে আসছে।

প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী, অসম রাইফেল সন্দেহজনক এক রোহিঙ্গা মুসলিমকে গ্রেফতার লাচারের বাগধারা এলাকা থেকে গ্রেফতার করেছে। ওই রোহিঙ্গার নাম আলম হুসেন, মায়ানমার থেকে পালিয়ে এসে এখন সে ভারতে ঢুকে পড়েছে। জানা গেছে আলম হুসেন নামের এই রোহিঙ্গা ভারতের এক স্থানীয় মেয়েকে বিয়ে করে নিয়েছে। অসমের এক ব্যাক্তি নিজের মেয়েকে আলম হুসেনের সাথে নিকাহ দিয়েছে। ভারতের কিছুজন রোহিঙ্গা মুসলিমদের সাহায্যের জন্যে মাঠে নেমে গেছে। যার প্রমান এখন হাতে নাতে পাওয়া যাচ্ছে।

হুসেন আলম ভারতে প্যান কার্ড, আধার কার্ড, রেশন কার্ড ইত্যাদি বানিয়ে ফেলেছে। সম্ভবত ভারতের নেতাদের সাহায্যেই আলম এসব বানিয়েছে। হুসেন আলম নিজের বেগমের সাথে অসমে বাস করছিল এবং জনসংখ্যা বিস্তারের কাজ করছিল। খবর এটাও পাওয়া গেছে যে, আলম হুসেন আতঙ্কবাদী সংগঠনের সাথে জড়িত। আলম হুসেন আতঙ্কবাদী সংগঠনদের হয়ে গোয়েন্দার কাজ করতো। এই রোহিঙ্গার কাছে থেকে অনেক সন্দেহজনক কাগজ পত্র সংগ্রহ করা হয়েছে।