Press "Enter" to skip to content

হতাশ মোদী বিরোধীরা! ব্যালট পেপার দ্বারা মতদানের আবেদন খারিজ করলো সুপ্রিম কোর্ট।

সুপ্রিম কোর্ট আর্বান নকশালী ও বিরোধীদের বড়ো ঝটকা দিয়েছে। নকশালী ও বিরোধীরা এই সুযোগের জন্য বসেছিল যে ভারতে যেভাবে হোক ে ভোটিং হোক। কারণ ে ভোটিং হলে নকশালীরা বুথ দখল করে সেখানে তারা তাদের পুরানো খেলা দেখাতে পারতো। আগে ভারতে ে ভোটিং হতো এবং তখন নকশালী নেতারা বুথ কবজা করে ে নিজেরা ভোট দিয়ে বাক্সে ঢুকিয়ে দিত। নকশালী নেতারা নিজেদের পছন্দের নেতাকে জেতানোর জন্য এই সমস্ত কিছু করতো। বিগত কিছুদিন ধরে নকশালী নেতারা এই সুযোগে বসেছিল যে কিভাবে আবার ের যুগ ফিরে আসে। কিন্তু সুপ্রিম কোর্ট থেকে এই নকশালী নেতারা বড়ো রকমের ঝটকা পেয়েছে। বিগত কয়েমাসে অর্বান নকশালীরা EVM খারাপ হওয়ার ইস্যুকে বার বার উঠিয়েছে। যেখানে যেখানে মোদী বিরোধীরা হারত সেখানেই EVM খারাপ বলে দাবি করা হতো এবং যেখানে নকশালী সকমর্থকরা জিতে যেত সেখানে EVM নিয়ে মুখে লাগাম লাগিয়ে নিত।

দেশের বামপন্থী EVM এর বিরুদ্ধে খুব উৎপাত চালিয়েছিল। একই সাথে কেজরিওয়াল পর্যন্ত EVM এর বিরোধিতা করেছিল, অথচ এই EVM এর দ্বারাই কেজরিওয়াল দিল্লিতে ক্ষমতায় এসেছিল। তবে EVM এর বিরুদ্ধে সবথেকে বেশি উৎপাত করেছিল দেশের কংগ্রেস পার্টি। সম্প্রতি অর্বান নকশালীরা সুপ্রিম কোর্টে আবেদন করেছিল ভারতে EVM এর পরিবর্তে আবার ব্যালট পেপারে ভোট লাগু করার জন্য।

কিন্তু গতকাল সুপ্রিম কোর্টের থেকে অর্বান নকশালীরা বড়ো ঝটকা পেয়েছে। ব্যালট পেপার লাগু করার আবেদনকে সুপ্রিম কোর্ট খারিজ করে দিয়েছে। সুপ্রিম কোর্ট জানিয়েছে ব্যালট পেপার পুরানো সময়ের পদ্ধতি যেটা সুরক্ষিত নয়। অন্যদিকে EVM যথেষ্ট সুরক্ষিত তাই EVM থেকে ব্যালট পেপারে যাওয়া উচিত নয়। এমনটাই পরিষ্কার জানিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। নির্বাচনে মত প্রদান করার জন্য সবথেকে সুরক্ষিত ও সহজ। এমন জানিয়ে অর্বান নকশালীদের আবেদন খারিজ করেছে সুপ্রিম কোর্ট।

আগামী ৫ রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচন ও ২০১৯ এই লোকসভা নির্বাচন EVM মেশিনের এর পরিবর্তে ব্যালট পেপারে করানোর জন্য আদালতে আর্জি জানিয়েছিল লোকতন্ত্র বিরোধীরা। আসলে EVM মেশিনের বিরোধীরা লোকতন্ত্রে বিশ্বাসী নয় বরং বুথ দখল করে নিজেদের পার্থী জেতানোর উপর বিশ্বাসী। তবে সুপ্রিম কোর্টের রায় আসার পর এখন বিরোধী ও নকশালবাদীদের কাছে হতাশ হওয়া ছাড়া অন্য কিছু উপায় নেই।