Press "Enter" to skip to content

ভারতের এই স্থানে তৈরি হচ্ছে বিশ্বের সবথেকে উঁচু শিব মূর্তি! ২০ কিমি দূর থেকেই করা যাবে দর্শন।

বড় খবর : ( In The World ) বিশ্বের সবথেকে এবার ভারতে !

গুজরাটে নর্মদা নদীর তীরে সর্দার প্যাটেলের মূর্তির উন্মোচনের পর এবার রাজস্থানের নাথদ্বারাতে ভগবান শিবের অদ্ভুত মূর্তির কাজ সম্পূর্ন হওয়ার পথে। এটা বিশ্বে সবথেকে উঁচু শিব মূর্তি হিসেবে অবস্থান করবে। এই প্রতিমা খুবই অদ্ভুত ও অসাধারণ হবে। এই প্রতিমার উচ্চতা হবে ৩৫১ ফুট। ২০১৯ সালের মার্চ মাসের মধ্যে এটা তৈরি সম্পূর্ন হবে বলে মনে করা হচ্ছে। ৩৫১ ফুট স্ট্রাক্টচারের কাজ সম্পুর্ন হয়ে এখন প্রতিমার কাজ চলছে।
ভগবান শিবের এই মূর্তি উদয়পুর থেকে ৫০ কিমি দূরে নাথদ্বারার গনেশ টিকারীতে তৈরি করা হচ্ছে। বিশ্বের সবথেকে উঁচু এই মূর্তির ৮৫% কাজ সম্পূর্ন হয়ে গিয়েছে। এই পরিয়োজনা প্রভারী রাজেশ মেহেতা বলেন, ৩৫১ মিটার উঁচু সিমেন্ট ও কংক্রিট দিয়ে তৈরি করা বিশ্বের সবথেকে উঁচু শিব প্রতিমা বিশ্বের চতুর্থ সবথেকে উঁচু প্রতিমা হবে। একই সাথে ভারতের সর্দার প্যাটেলের মূর্তির পর দ্বিতীয় সবথেকে উঁচু প্রতিমা হবে।

উনি বলেছেন মিরজা গ্রুপের ড্রিম প্রজেক্ট ৮৫ শতাংশ সম্পূর্ন করে ফেলা হয়েছে। ২০১৯ এর মার্চ পর্যন্ত এই প্রজেক্ট সম্পূর্ন হয়ে যাবে। মেহেতা বলেন, ৩৫১ ফুটের ভগবান শিবের বিশালাকায় মূর্তি উদয়পুর থেকে ৫০ কিমি দূরে উদয়পুর জয়াপুর রাজমর্গে অবস্থিত নাথদ্বারার কাছে ১৬ একর পাহাড়ি জমির উপর তৈরি করা হচ্ছে।

বিগত ৪ বছর ধরে এই নির্মাণ চলছে বলে উনি জানান। ভগবান শিবের ত্রিশুলের উচ্চতা ৩১৫ ফুট হবে বলে জানা গিয়েছে। পর্যটকদের সুবিধার জন্য মূর্তিতে ৪ টি লিফট ও দুটি সিঁড়ির ব্যাবস্থা করা হচ্ছে। পর্যটকরা ২৮০ ফুট উচ্চতা পর্যন্ত উঠতে পারবে।

এই মূর্তি উঁচু পাহাড়ি এলাকায় হওয়ার কারণে অনেক দূর থেকে এই মূর্তি লক্ষ করা সম্ভব হবে। মেহেতা বলেন, মূর্তি ২০ কিমি দূরের ফ্লাইওভার থেকেও দেখতে পাওয়া যাচ্ছে। রাতে এই মূর্তি স্পষ্ট দেখার জন্য একপ্রকার বিশেষ আলো আনা হয়েছে। খুব তাড়াতাড়ি এই মূর্তি তৈরি হয়ে হিন্দুদের আনন্দ বৃদ্ধি করবে বলে মনে করা হচ্ছে।