Press "Enter" to skip to content

ছত্রিশগড়ে গিয়ে কংগ্রেস নেত্রী সোনিয়া গান্ধীর পোল খুলে দিলেন, উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যানাথ।

দেশের খবর : ছত্রিশগড়ে সোনিয়া গান্ধীর মুখোশ খুলে দিলেন যোগী আদিত্যনাথ (Yogi Adityanath )

ছত্রিশগড়ে বিধানসভা নির্বাচনের প্রচারের জন্য বৃহস্পতিবার দিন পৌঁছে ছিলেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যানাথ। ছত্রিশগড়ে পৌঁছে কংগ্রেসের কুকর্ম সবার সামনে খুলে দিলেন মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যানাথ। যা নিয়ে এখন ছত্রিশগড় সহ সমগ্র দেশে বিবাদ সৃষ্টি হয়েছে। যোগী আদিত্যানাথ অভিযোগ উঠিয়ে বলেন ছত্রিশগড়ে কংগ্রেস আমলে ইতালি থেকে আসা ব্যবসায়ীরা হিন্দুদের ধর্মান্তরণ করতো। যোগী আদিত্যানাথ সাজগুরা অঞ্চলের জশপুর জেলায় এক নির্বাচনী সভায় বলেন, ২০০৩ পর্যন্ত এখানে কংগ্রেস সরকার ছিল। জানিয়ে দি যোগী আদিত্যানাথ প্রত্যক্ষরূপে সোনিয়া গান্ধীর উপর আক্রমণ করছিলেন। যোগী আদিত্যানাথ বলেন ২০০০ সালে ছত্রিশগড় তৈরি হয়েছিল।

কিন্তু তার থেকে এখানে কংগ্রেসের কুশাসন শুরু হয়ে গেছিল। এই কুশাসন রাজ্যে রাস্তা ছিল না, বিদ্যুৎ ছিল না, শিক্ষা ও স্বাস্থ্যের পরিষেবাও ছিল না। যোগীজি বলেন, সেই সময় ইতালি থেকে আগত ব্যাবসায়ীরা এখানের হিন্দুদের বোকা বানিয়ে মারাত্মকভাবে ধর্মান্তরণ করিয়েছিল। জশপুরের দিলীপ কুমার সিং সেই সময় নিজের শক্তির জোরে এই ধর্মান্তরণের বিরুদ্ধে দাঁড়িয়ে ছিলেন।

আদিত্যানাথ বলেন যদি সেই সময় জশপুরে যদি শক্তিশালী হিন্দুরা ধর্মান্তরনে বাধা না দিত তাহলে এই এলাকা দন্ডকারণ্য পরিণত হয়ে মাওবাদীদের আড্ডাখানায় রূপান্তরিত হতো। যোগী আদিত্যানাথ বলেন এখানে মর্যাদা পুরুষোত্তম ভগবান শ্রী রাম সবথেকে বেশি সময় কাটিয়েছিলেন।

কংগ্রেসের উপর আক্রমণ করে যোগী বলেন, “কংগ্রেস সময়কালে এখানের কোথাও খাদ্য মাফিয়া, কোথাও কয়লা মাফিয়া তো কোথাও আবার বন মাফিয়ারা রাজত্ব করতো। এই মাফিয়া দেখে আমায় ইতালি মনে আসে। মাফিয়া শব্দ ইতালি থেকে এসেছে।” ১২ নভেম্বর ছত্রিশগড়ে প্রথম চরণের ১৮ টি বিধানসভা আসনের উপর নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। অবশিষ্ট ৭২ টি আসনের উপর ২০ নভেম্বর মতদান সম্পন্ন হবে। জানিয়ে দি ভারতে গরিব হিন্দুদের ধর্মান্তরণ করার পিছনে অনেক খ্রিস্টান মিশনারি ও তার সাথে সোনিয় গান্ধীর ভূমিকা আছে বলে ধারণা করা হয়। তবে কেউ খোলাখুলি সোনিয়ার বিরুদ্ধে এইভাবে বলতে পারে না। তবে যোগী আদিত্যানাথ এটা করে দেখিয়েছেন এবং সোনিয়া গান্ধীর পোল খুলেছেন।