Press "Enter" to skip to content

যোগী আদিত্যনাথের একশন শুরু! আজম খানের এলাকায় থাকা উর্দু গেট ভেঙে গুঁড়িয়ে দিল যোগী প্রশাসন।

যোগী সরকার আরো একবার উত্তরপ্রদেশে একশন শুরু করে দিয়েছে। উত্তরপ্রদেশের রামপুরে যোগী প্রশাসন বড় কর্মকান্ড করে দিয়েছে। রামপুরে জহর ইউনিভার্সিটি যাওয়ার রাস্তায় যে উর্দু গেট রয়েছে সেটাকে ভেঙে গুঁড়িয়ে দিয়েছে যোগী সরকার। এই উর্দু গেট সমাজবাদী পার্টির আমলে আজম খানের নেতৃত্বে তৈরি করা হয়েছিল। মূলত মুসলিম তোষণের রাজনীতির জন্য এই গেট তৈরি করার অনুমতি দিয়েছিল অখিলেশ যাদব। যা আজম খানের নেতৃত্বে গড়ে উঠেছিল। যোগী সরকার বড় সংখ্যায় পুলিশ বাহিনী নামিয়ে এই কর্মকান্ড সম্পন্ন করেছে। উর্দু গেট ভাঙ্গাকে কেন্দ্র করে এখন রাজনৈতিক মহল উত্তপ্ত হয়ে উঠছে।

জহর বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে থাকা এই উর্দু গেটের উচ্চতা ৮ ফুট থাকায় যানবাহন পারাপার করতে অসুবিধা হতো। এই নিয়ে প্রশাসনের কাছে অনেকবার অভিযোগ করা হয়েছিল যারপর প্রশাসন একশন নিয়েছে বলে সূত্রের । তবে অনেকের মতে এই উর্দু গেট ভারতীয় সংস্কৃতির জায়গায় আরবের সংস্কৃতি পরিবেশন করতো, সেই কারণে যোগী প্রশাসন উর্দূ গেটকে ভেঙে গুঁড়িয়ে দিয়েছে। ডিএম নিজে উপস্থিত থেকে এই গেটকে উপড়ে ফেলে দিয়েছেন এবং রাস্তা পুরো সাফ করে দিয়েছেন।

সমাজবাদী পার্টি এই উর্দু গেট নির্মাণ এই জন্য প্রায় ৪০ লক্ষ টাকা খরচ করেছিল। কিন্তু উপযুক্ত পরিকল্পনা ছাড়াই এই গেট নির্মান হয়েছিল যার ফলে ভারী যানবাহন যাতায়াত করতে খুবই সমস্যায় পড়তো। এই গেট রামপুর জেলাকে উত্তরখন্ড রাজ্যের সাথে জুড়ে থাকা রাস্তার উপর পড়ে। যার জন্য বড় যানবাহন এই রাস্তা দিয়ে পারাপার করা স্বাভাবিক ব্যাপার ছিল।

ঘটনার পর উত্তরপ্রদেশের  কট্টরপন্থীরা যোগী সরকারের উপর ক্ষোভ প্রকাশ করেছে। সরকারের কাজে কট্টরপন্থীরা যাতে কোনো বাধা না দিতে পারে তার জন্য ভারী সংখ্যায় পুলিশ বাহিনী নামিয়ে দিয়ে তারপর উর্দূ গেটকে ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। এখন এই উর্দু গেট ভাঙ্গাকে কেন্দ্র করে উত্তরপ্রদেশে রাজনীতি শুরু হয়ে গেছে।

5 Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.